মঙ্গলবার, ০১ ডিসেম্বর ২০২০, ০৮:৩৪ পূর্বাহ্ন

ব্রেকিং
জনপ্রিয় অনলাইন সংবাদের পাতায় আপনাকে স্বাগতম
প্রথমদিনে বিএনপির প্রার্থীতা ফিরে পেলেন ৩৮ জন

প্রথমদিনে বিএনপির প্রার্থীতা ফিরে পেলেন ৩৮ জন

প্রথমদিনে বিএনপির প্রার্থীতা ফিরে পেলেন ৩৮ জন

Spread the love

আসন্ন একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনের মনোনয়নপত্র যাচাই-বাছাইয়ে প্রাথমিকভাবে বাদ পড়া ৫৪৩ জন রিটার্নিং কর্মকর্তার সিদ্ধান্তের বিরুদ্ধে নির্বাচন কমিশনে (ইসি) আপিল করেছিলেন। তাদের আবেদনের ওপর প্রথম দিনে ১৬০ জনের শুনানি শেষ হয়েছে। এর মধ্যে ৮১ প্রার্থীর মনোনয়নপত্র বৈধ ঘোষণা করা হয়েছে। এরমধ্যে বিএনপির প্রার্থী রয়েছে ৩৮ জন। ফলে একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে তাদের প্রতিদ্বন্দ্বিতা করতে আর বাধা রইল না।

বৃহস্পতিবার (৬ ডিসেম্বর) সন্ধ্যায় নির্বাচন কমিশন সূত্রে এ তথ্য নিশ্চিত হওয়া গেছে।

এর আগে সকাল ১০টায় নির্বাচন কমিশনের অস্থায়ী এজলাসে এ শুনানি শুরু হয়। প্রধান নির্বাচন কমিশনার কে এম নূরুল হুদা, নির্বাচন কমিশনার মাহবুব তালুকদার, মো. রফিকুল ইসলাম, বেগম কবিতা খানম ও ব্রিগেডিয়ার জেনারেল (অব.) শাহাদাত হোসেন চৌধুরী এ আপিল শুনানি করেন। দুপুর পর্যন্ত ৫৬ জন বৈধ, ৪০ জন বাতিল ও দুইজনের আবেদন স্থগিত রাখে ইসি।

ইসির যুগ্ম সচিব (জনসংযোগ) এসএম আসাদুজ্জামান এ তথ্য নিশ্চিত করে জানান, ৭৬টি মনোনয়ন অবৈধ ও ৪টি আপিল পেন্ডিং রয়েছে।

প্রথম দিন দুপুরের বিরতির আগে প্রার্থিতা ফিরে পেয়েছেন বগুড়া-৭ আসনে বিএনপির প্রার্থী মোর্শেদ মিল্টন, ঢাকা-২০ আসনে ধামরাই উপজেলা বিএনপির সভাপতি মো. তমিজ উদ্দিন, কিশোরগঞ্জ-২ আসনে বিএনপি প্রার্থী মেজর (অব.) আখতারুজ্জামান, পটুয়াখালী-৩ আসনে বিএনপি প্রার্থী গোলাম মাওলা রনি, ঝিনাইদহ-২ আসনে বিএনপি প্রার্থী আব্দুল মজিদ, ঢাকা-১ আসনে বিএনপি প্রার্থী খন্দকার আবু আশফাক।

গত তিন দিনে নির্বাচন কমিশনে (ইসি) মোট ৫৪৩টি আপিল জমা পড়ে। প্রথম দিন ৩ ডিসেম্বর ৮৪, দ্বিতীয় দিন ৪ ডিসেম্বর ২৩৭ এবং শেষ দিন গতকাল বুধবার ২২২টি আপিল জমা পড়ে।

শুনানি উপলক্ষে নির্বাচন ভবনের ১১ তলায় ট্রায়াল রুম তৈরি করেছে ইসি।

সূত্র জানায়, বৃহস্পতিবার প্রথম দিন ১ থেকে ১৬০, দ্বিতীয় দিন শুক্রবার ১৬১ থেকে ৩১০ এবং তৃতীয় দিন শনিবার ৩১১ থেকে ৫৪৩ পর্যন্ত শুনানি অনুষ্ঠিত হবে।

একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে অংশ নিতে মোট ৩ হাজার ৬৫টি মনোনয়নপত্র জমা পড়েছিল।

গত ২ ডিসেম্বর যাচাই-বাছাইয়ের পর নানা কারণে ৭৮৬টি বাতিল ঘোষণা করেন রিটার্নিং কর্মকর্তারা। এদের মধ্যে অনেকেই প্রার্থিতা ফিরে পেতে নির্বাচন কমিশনে আপিল আবেদন করেছেন।

উল্লেখ্য, আগামী ৯ ডিসেম্বর মনোনয়ন প্রত্যাহারের শেষ দিন এবং ১০ ডিসেম্বর প্রতীক বরাদ্দ দেয়া হবে। আর ভোট গ্রহণ ৩০ ডিসেম্বর অনুষ্ঠিত হবে।


Comments are closed.




© All rights reserved © 2018 sangbaderpata.Com
কারিগরি সহায়তায় ইঞ্জিনিয়ার বিডি