বৃহস্পতিবার, ০৩ ডিসেম্বর ২০২০, ০৮:১৭ অপরাহ্ন

ব্রেকিং
জনপ্রিয় অনলাইন সংবাদের পাতায় আপনাকে স্বাগতম
রেকর্ড গড়ে জয় পেল মুশফিকের চিটাগং

রেকর্ড গড়ে জয় পেল মুশফিকের চিটাগং

রেকর্ড গড়ে জয় পেল মুশফিকের চিটাগং

Spread the love

ক্রীড়া ডেস্ক: বিপিএলের চলতি আসরে রান সংগ্রহের রেকর্ড গড়ে জয় পেয়েছে মুশফিকুর রহিমের চিটাগং ভাইকিংস। অন্যদিকে হারের বৃত্ত থেকে বের হতে পারল না খুলনা টাইটান্স। ম্যাচে খুলনা টাইটান্সকে ২৬ হারিয়ে জয়ের ধারা অব্যাহত রেখেছে চিটাগং।

শনিবার সিলেট আন্তর্জাতিক ক্রিকেট স্টেডিয়ামে প্রথমে ব্যাট করতে নেমে নির্ধারিত ২০ ওভারে ৪ উইকেট হারিয়ে ২১৪ রানের পাহাড় গড়ে চিটাগং। বিশাল রানের জবাবে ব্যাট করতে নেমে নির্ধারিত ওভার শেষে আট উইকেট হারিয়ে ১৮৮ রান সংগ্রহ করে মাহমুদউল্লাহর খুলনা।

শুরুতেই শূন্য রানে স্টার্লিং বিদায় নিলে কিছুটা চাপে পড়ে খুলনা। তবে টেলর ও অধিনায়ক মাহমুদউল্লাহর ঝড়ো ইনিংস খেলায় ফেরার স্বপ্ন দেখা। কিন্তু টেলর ১৬ বলে ২৮ রান করে বিদায় নেন। এদিকে মাহমুদউল্লাহ ২৬ বলে ৫০ রান করে বিদায় নিলে খেলা ছিটকে যায় খুলনা। খুলনার পক্ষে ডেভিড ওয়াইস করে ২০ বলে ৪০ রান। এদিকে অন্য কোনো ব্যাটসম্যান নিজেদের নামের বিচার করতে পারেননি। ফলে আবারও জয়হীন থেকে মাঠ ছাড়ে মাহমুদউল্লাহর খুলনা।

চিটাগংয়ের পক্ষে আবু জায়েদ নিয়েছেন তিনটি উইকেট। খালেদা এবং ডেলপোর্ট নেন দুটি। এছাড়াও নাঈম হাসান নেন একটি উইকেট।

এর আগে টস হেরে ব্যাটিংয়ে নেমে দলীয় ১৭ রানে বিদায় নেন ওপেনার ক্যামেরন ডেলপোর্ট। ১২ বলে ১৩ রান করেন এই দক্ষিণ আফ্রিকান ব্যাটসম্যান। তবে ভয়ঙ্কর হয়ে ওঠা আরেক ওপেনার মোহাম্মদ শাহাজাদ ব্যক্তিগত ১৭ বলে ৩৩ রান করে ফেরেন।

এরপর ইয়াসির আলী ও অধিনায়ক মুশফিকুর রহিম দ্বিতীয় উইকেট জুটিতে ৮৩ রান তোলেন। ৩৬ বলে ৫ চার ও ৩ ছক্কায় ৫৪ রান করে আউট হন ইয়াসির আলী। ২৯ বলে হাফসেঞ্চুরির দেখা পান দলনেতা মুশফিকুর রহিম। ৩৩ বলে আটটি চার ও এক ছক্কায় ৫২ করে বিদায় নেন তিনি।

এরপর ঝড় তোলেন দাসুন শানাকা ও নাজিবুল্লাহ জারদান। শানাকা ১৭ বলে ৪২ ও জারদান ৫ বলে ১৬ রান করে অপ্রাজিত থাকেন। সেই সঙ্গে ২১৪ রানে থামে চিটাগাং ভাইকিংসের ইনিংস। চলতি আসরের এখন পর্যন্ত সর্বোচ্চ স্কোর।

খুলনার পক্ষে ডেভিড ওয়াইজ ২টি, শফিউল ইসলাম ও তাইজুল ইসলাম ১টি করে উইকেট নেন।


Comments are closed.




© All rights reserved © 2018 sangbaderpata.Com
কারিগরি সহায়তায় ইঞ্জিনিয়ার বিডি