রবিবার, ২৯ নভেম্বর ২০২০, ০৪:৩২ পূর্বাহ্ন

ব্রেকিং
জনপ্রিয় অনলাইন সংবাদের পাতায় আপনাকে স্বাগতম
‘সমবায়ের মাধ্যমে কর্মসংস্থান সৃষ্টি সম্ভব’

‘সমবায়ের মাধ্যমে কর্মসংস্থান সৃষ্টি সম্ভব’

‘সমবায়ের মাধ্যমে কর্মসংস্থান সৃষ্টি সম্ভব’

Spread the love

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বলেছেন, বঙ্গবন্ধু সমবায় সমিতিকে সব চাইতে বেশি গুরুত্ব দিতেন। কারণ সমবায়ের মাধ্যমে কর্মসংস্থান সৃষ্টি করা যায়। কর্মসংস্থান সৃষ্টি করতে পারলে বেকার যুবকদের কাজে লাগানো যায়। ওই সময় বঙ্গবন্ধু সমবায় সমিতিকে কার্যকর করার জন্য মিল্কভিটা প্রতিষ্ঠা করেছিলেন। এটার মাধ্যমে অাজ হাজার হাজার পরিবার উপকৃত হচ্ছে।

রোববার (২৫ নভেম্বর) সকালে বঙ্গবন্ধু অান্তর্জাতিক সম্মেলন কেন্দ্রে অনুষ্ঠিত ৪৭তম জাতীয় সমবায় দিবস ২০১৮ উদযাপন এবং ২০১৬ ও ২০১৭ সালের জাতীয় সমবায় পুরস্কার বিতরণী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে এসব কথা বলেন তিনি।

শেখ হাসিনা বলেন, সমবায় মানুষকে অর্থনৈতিক মুক্তি দিতে পারে। একটি বাড়ি একটি খামার একটি কার্যকর প্রকল্প। এই প্রকল্পের মাধ্যমে সারা দেশে হাজার হাজার মানুষ দারিদ্র্যের অতি দারিদ্র্যের হাত থেকে মুক্তি পাচ্ছে। অনেকে স্বাবলম্বী হয়েছে।

তিনি বলেন, এই প্রকল্পের সদস্যরা ১০০ টাকা জমা করলে সরকার তাদের ১০০ টাকা দিচ্ছে। এইভাবে তারা স্বাবলম্বী হয়ে উঠছেন। তাদের জন্য পল্লী সঞ্চয় ব্যাংক করা হয়েছে। এই প্রকল্পে এসে অনেক যুবক দগ্ধ প্রকল্প এবং পশু পালন প্রকল্প করে প্রতিষ্ঠিত হয়েছে। তাদের অর্থকষ্ট দূর হয়েছে।

অন্যান্যদের মধ্যে অনুষ্ঠানে আরও বক্তব্য রাখেন- পল্লী উন্নয়ন ও সমবায় মন্ত্রী ইঞ্জিনিয়ার খন্দকার মোশাররফ হোসেন ও পল্লী উন্নয়ন ও সমবায় প্রতিমন্ত্রী মশিউর রহমান রাঙ্গা।

খন্দকার মোশাররফ হোসেন বলেন, দেশে বর্তমানে সমবায় সংগঠনগুলোর মাধ্যমে প্রায় ৯ লক্ষ লোকের কর্মসংস্থান হয়েছে। প্রধানমন্ত্রীর চেষ্টায় ২০৪১ সালের মধ্যে বাংলাদেশ আত্মমর্যাদাশীল উন্নত রাষ্ট্র পরিণত হবে। এজন্য তিনি সমবায়ীদের সাহায্য প্রত্যাশা করেন।

অনুষ্ঠানে সমবায়ের ক্ষেত্রে গুরুত্বপূর্ণ অবদানের জন্য ১০ টি ক্যাটাগরিতে, বিভিন্ন সমবায়ী ও সংগঠনকে জাতীয় সমবায় পুরস্কার ২০১৬ ও ২০১৭ প্রদান করা হয়।


Comments are closed.




© All rights reserved © 2018 sangbaderpata.Com
কারিগরি সহায়তায় ইঞ্জিনিয়ার বিডি